মুক্তিযুদ্ধ বনাম সাম্প্রদায়িক রাজনীতি
আইয়ুব হোসেন
সুচয়নী পাবলিশার্স


স্বাধীনতার আকাঙ্ক্ষায় মুক্তিযুদ্ধের স্পৃহা সঞ্চারিত হয়েছিল বাঙালি জাতির মধ্যে। ছাত্র-তরুণ সমাজ লড়াই এর ডাক দিয়ে প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছিল। বিপুল ত্যাগের ভেতর দিয়ে অভ্যুদয় ঘটলো এ জাতির, এদেশের। মুক্তিযুদ্ধের চেতনার মধ্যে নিহিত ছিল অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ রাষ্ট্রের।
পঁচাত্তরের পট পরিবর্তনের পর সাম্প্রদায়িক রাজনীতির চাষাবাদ হয়েছে জোরেশোরে। একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত, ঘৃণ্য সাম্প্রদায়িক দল মাথাচাঁড়া দিয়ে উঠেছে ও শক্তি সংহত করেছে।
অন্যদিকে অসাম্প্রদায়িক রাজনৈতিক ও সামাজিক শক্তিগুলোও ক্রমশই পিছিয়ে পড়ছে। নিছক কিছু নাগরিক সমাবেশ ও অন্যান্য খুচরো কিছু কর্মসূচির মধ্যে এগুলোর তৎপরতা সীমাবদ্ধ। সমাজে প্রগতিশীল শক্তি যতটাই দুর্বল হয়ে পিছিয়ে পড়েছে, সাম্প্রদায়িক ও অন্যান্য প্রতিক্রিয়াশীল শক্তি ততটাই এগিয়ে গেছে।
সাম্প্রদায়িক শক্তিকে দূর করার জন্য অসাম্প্রদায়িক শক্তিকে ঘুরে দাঁড়াতে হবে।
- বইয়ের ভূমিকা থেকে